ভালোবাসার গল্প

Short Sad Love Story – শুধু তোমার অপেক্ষায় ছিলাম।

Short Sad Love Story – অভি আর তন্নী দুজনে খুব ভালো বন্ধু ছিল। 

তারা একই স্কুলে, একই ক্লাসে পড়তো।

তাদের স্কুলের সামনে একটি পার্ক ছিল।

তারা সেখানে সময় পেলে বসে গল্প করত। 

তন্নী অভিকে খুব ভালবাসত।

কিন্তু কখনো ভয় বলেনি, যদিও অভি তাকে ছেড়ে দেয়। 

তাছাড়া তন্নী ভাবে,যদিও অভি তাকে কোনদিন ভালোবাসে। 

তাহলে সে তাকে সবকিছু খুলে বলবে। 

একদিন তন্নী অভিকে বললো, অভি তুমি আমাকে ছেড়ে যেও না কখনো।

আমি সত্যি,তোমাকে ছাড়া থাকতে পারবো না। 

অভি কথাটির কোনো উত্তর দিলো না। 

কদিন পর খবর আসলো, অভি তার বাবা-মার কাছে চলে গেছে।

অভির বাবা-মা কানাডা থাকে।

সে এখানে তার দাদার কাছে ছিল। 

অভির চলে যাওয়ার খবর শুনে,তন্নী কান্নাকাটি করে। 

অভির সাথে কি আর কোনদিন দেখা হবে না। 

 >>>>> Short Sad Love Story – শুধু তোমার অপেক্ষায় ছিলাম <<<<<

যদি দেখা হয় আর অপেক্ষা করব না, তাকে সরাসরি বলে দিব।  

আমি তাকে কত ভালবাসি।

তন্নী অভির অপেক্ষায় থাকল 5 বছর। 

কিন্তু অভি ফিরে আসলো না। 

হঠাৎ একদিন অভি চলে এলো। 

আর প্রথমে তার সেই স্কুলে গেলো। 

তারপর সে পার্কটিতে গেল। 

সে জায়গার কাছে গিয়ে দাঁড়ালো। 

যেখানে তারা দুজনে, সবচেয়ে বেশি সময় কাটিয়ে ছিল।  

অভি সেখান থেকেই সোজা তন্নীর বাড়ি চলে আসলো। 

দরজাটি নক করতে দরজাটি খুলল, তন্বী। 

আর অবাক হয়ে যায় সেই ছোটবেলার মানুষটিকে দেখে। 

কত পরিবর্তন হয়েছে। 

অভি তন্নীকে দেখে মুগ্ধ হয়ে যায়। 

আর বলেই ফেলে তুমি আগের থেকে খুব সুন্দর হয়ে গেছো। 

ভালোবাসার কষ্টের গল্প

অভি লক্ষ করল, তন্নীর চোখ থেকে পানি ঝরে পড়ছে। 

অভি তন্নীর সামনে হাঁটু গেড়ে বসে বলল,আমি চলে এসেছি। 

আমি আর তোমাকে কোনদিন ছেড়ে যাবো না।  

আমি তোমাকে অনেক ভালোবাসি। 

তন্নী নিজের চোখের পানি মুছে, অভির দিকে তাকিয়ে বলল। 

অভি তুমি কি জানো, আমার বিয়ে হয়ে গেছে। 

কথাটি শুনে, অভির মুখটা অন্ধকারে ঢেকে গেল। 

যেন কোন ভাষা খুঁজে পাচ্ছে না। তন্নীকে বলার জন্য। 

তারপর তন্নী অভিকে বললো। 

উঠে দাঁড়াও, বাসায় বাবা-মা আছে তারা তোমাকে খারাপ মনে করবে। 

অভি উঠে দাঁড়ালো, আর তন্নীকে বললো। তুমি একটি বার সেই পার্কটিতে আসবে।

আমি সেই আগের মতো একটু সময় কাটাবো।

তারপর আমি বাড়ি চলে যাব। 

আর কোনদিন ফিরে আসব না। 

তন্নী বললো, কালকে সকালে আসব। 

অভি চলে গেল। 

সকাল হতেই অভি সেই পার্কটিতে এসে অপেক্ষা করতে লাগলো।

লাল শাড়ি, কপালে লাল, টিপ অপূর্ব সুন্দর সেই মুখটি যার অপেক্ষায় বসে ছিল অভি। 

দুজনের পাশাপাশি, বসে মুখে কোন কথা নেই। 

চোখ থেকে পানি ঝরছে, যেমন মেঘ ছাড়াই বৃষ্টি। 

অভি তন্নীকে বললো।

আমি চলে যাব,তোমাকে কষ্ট দেওয়ার জন্য আমাকে ক্ষমা করে দিও। 

তন্নী অভি মুখের দিকে তাকিয়ে বলল।  

আমি একটা মেয়ে হয়ে তোমার জন্য এত বছর অপেক্ষা করেছিলাম। 

যদি আমার নাই হবে, তবে এখন কেন এলে। 

তোমাকে তো ভুলতে পারিনি।

কিন্তু নিজেকে বুঝিয়েছিলাম, তুমি আমাকে ভালোবাসো না। 

কিন্তু আজ আমি কিভাবে বোঝাবো বল। 

অভির মুখে কোন ভাষা নেই।  

নিস্তব্ধ, চোখ দুটো জলে ভরা। 

বুকে চাপা কষ্ট নিয়ে, যার যার জীবনে চলে গেল। 

হয়তো আর কোনদিন দেখা হবে না তাদের। 

আর কোনদিন বসা হবে না। 

এই পার্কে আর কেউ অপেক্ষা করবে না, কারো জন্য।

 


 

নতুন সব কষ্টের গল্প পেতে, এখানে ক্লিক করুন।

ওয়ার্ডপ্রেস সাইট কিভাবে SEO করতে হয়? এই বিষয়ে এই ওয়েবসাইটে আলোচনা করা হয়েছে ঘুরে আসতে পারেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button